News Narayanganj
Bongosoft Ltd.
ঢাকা সোমবার, ৩০ জানুয়ারি, ২০২৩, ১৬ মাঘ ১৪২৯

আপনারা কিছুই করেন নাই তাহলে কেন আইনজীবীদের বিভ্রান্ত করছেন


দ্যা নিউজ নারায়ণগঞ্জ ডটকম | স্টাফ করেসপন্ডেন্ট প্রকাশিত: নভেম্বর ৩০, ২০২২, ১০:৩৭ পিএম আপনারা কিছুই করেন নাই তাহলে কেন আইনজীবীদের বিভ্রান্ত করছেন

নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট হাসান ফেরদৌস জুয়েল বলেন, ১৫শ আইনজীবীর স্বপ্নের বার ভবনের সামনে দাঁড়িয়ে আমরা কথা বলছি। এই বার ভবনের জন্য আমরা গত চার বছর ধরে নিরলস কাজ করে যাচ্ছি। আইনজীবী সমিতি যখন এখানে স্থানান্তরিত হয় তখন এখানে আইনজীবীদের বসার কোন জায়গা ছিল না। আমাদের মাননীয় সংসদ শামীম ওসমান নিজে এসে কোদাল ধরে আইনজীবীদের জন্য বসার ব্যবস্থা করলেন। বিনিময়ে তাকে সহ ১৭-১৮ জনের বিরুদ্ধে জিডি করা হলো। সে জিডিতে খোকন সাহা ও হাসান ফেরদৌস জুয়েলে সহ আরও অনেকের নাম ছিল। যারা সংবাদ সম্মেলনের নামে মিথ্যা কথা বলে গেলেন আইনজীবীদের বিরুদ্ধে কথা বলে গেলেন তাদের একজনের নামও সে জিডিতে ছিল না। বার বিল্ডিং যখন একতালা তৈরি হয় তখন সেলিম ওসমান মহোদয় নিজ পকেট থেকে বিশাল অঙ্কের অর্থ দিয়েছেন। আমরা টাকা দিয়ে নিচ তলা তৈরি করেছি। দুইতলা যখন তৈরি হয় সুরুজ আলী সাহেব নিজ অর্থায়নে করে দিয়েছিলেন। একটা মাত্র চারতলা বিল্ডিংয়ের মধ্যে ১০ হাজার স্কয়ার ফিট জায়গা। আইনজীবীদের বসার জায়গা ছিল না। সেলিম ওসমান মহোদয় কোন দিন আইনজীবী সমিতি বিল্ডিংয়ে আসেন নাই। সেলিম ওসমান মহোদয় যখন এসে দেখলেন মাত্র দেড়শ স্কয়ার ফিটের মধ্যে প্রায় পোনে দুইশ মহিলা আইনজীবী তাদের পেশা পরিচালনা জন্য একটি কমন রুম ব্যবহার করেন। তখন এক হাজার আইনজীবীর জন্য মাত্র দশ হাজার স্কয়ার ফিট চারতলা বিল্ডিং। এর মধ্যে অফিস থেকে শুরু করে সব কিছু তখন তিনি নিজ থেকে বললেন আমি বিল্ডিংটা করে দিতে চাই। আজকে পর্যন্ত তিন কোটি ষোল লক্ষ টাকা দিয়েছেন। সারা বাংলাদেশের মধ্যে নারায়ণগঞ্জ বারই এক মাত্র বার যেটা ব্যক্তি অর্থায়নে তৈরি হয়েছে। আমরা চার বছর নিরলস কাজ করে এই বিল্ডিং দাড় করালাম।

তিনি আরো বলেন, একজন ব্যক্তি টাকা দিয়েছেন আইনজীবীদের জন্য ভবন তৈরি হয়েছে। এই ভবন তৈরি করার সময় আপনার বিরোধিতা করেছেন আপনারা আইনজীবীদের স্বার্থে কথা বলেন নাই। ভবন তৈরি না হলে আমাদের বিতাড়িত করার ঘোষণা দেয়া হয়। আমরা এক বছরের মধ্যে একতলা তৈরি করেছি। আইনজীবী সমিতি নির্বাচনে আপনারা পরাজিত হয়েছিলেন আনোয়ার সাহেব আপনি নির্বাচনে পরাজিত হয়েছিলেন। আইনজীবীরা আপনাকে পছন্দ করে নাই আপনি হেরেছিলেন। নির্বাচন একটি খেলা, আইনজীবী সমিতির নেতৃত্ব দিয়েছে সাধারণ আইনজীবীরা। ১৪শ আইনজীবীর ভোটে আমরা নির্বাচিত হয়েছি। সেই নির্বাচনে ইসি কমিটি সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে ব্যক্তি বিনা কথায় এই ভবনে নির্মাণে টাকা দিয়েছে তাকে সম্মানিত করার। ইজিএমে তিন নাম্বার এজেন্ডা ছিল এই ভবন সম্পর্কে সিদ্ধান্ত তখন নাম প্রস্তাব করা হয়। সর্বসম্মতিক্রমে সব আইনজীবী বলেছিল পাস। আপনারা যারা সংবাদ সম্মেলন করেছেন তারাও তখন সেখানে বসা ছিলেন। আপনারা তখন কোন অভিযোগ তুলেন নাই। আপনারা অনেক বার কমিটিতে ছিলেন এ পর্যন্ত কি কাজ করেছেন সেটা দেখান। আপনারা কিছুই করেন নাই তাহলে কেন আইনজীবীদের বিভ্রান্ত করছেন।

৩০ নভেম্বর দুপুরে আইনজীবী সমিতি ভবনের সামনে সাংবাদিকদের জুয়েল এসব কথা বলেন। ১ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় আইনজীবী সমিতি ভবনটি ‘বীর মুক্তিযোদ্ধা সেলিম ওসমান বার ভবন’ উদ্বোধন নিয়ে ওই কথা বলেন জুয়েল।

Islams Group
Islam's Group