News Narayanganj
Bongosoft Ltd.
ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১৪ আশ্বিন ১৪২৯

বাবা হতে পেরে নিজেকে গর্বিত মনে করি


দ্যা নিউজ নারায়ণগঞ্জ ডটকম | তোফাজ্জল হোসেন, সম্পাদক দৈনিক ইয়াদ। প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২২, ১১:১৬ পিএম বাবা হতে পেরে নিজেকে গর্বিত মনে করি

দৈনিক ইয়াদ সম্পাদক তোফাজ্জল হোসেনের একটি ফেসবুক স্ট্যাটাস এখন বেশ ভাইরাল। ১৭ সেপ্টেম্বর তিনি সেই স্ট্যাটাসটি পোস্টা করেন।

তোফাজ্জল লিখেন, ‘গতকাল অফিস থেকে ফেরার পথে ভাবলাম কিছু সবজি নিয়ে যাই। দিগুবাবু বাজারে ঢুকে ৪০ টাকা দিয়ে এক আটি তাজা পুঁইশাক কিনলাম। (সমাগত ১ কেজি) পুইশাক কিনে চিন্তা করলাম এ তো রান্না করতে ইলিশ মাছ লাগবে। এত দাম দিয়ে ইলিশ মাছ কেনার সাধ্য আমার নাই। ভাবলাম ৫০ টাকার লইটকা শুটকি কিনব। কিন্তু মাছের বাজারে উঁকি দিতে গিয়ে দেখি ছোট ছোট ইলিশের বাচ্চা আছে। বিক্রেতাকে কত কেজি জিজ্ঞেস করতে বলল চাচা সারাদিন ৬ শত টাকা কেজি বেঁচেছি। এখন রাত, শেষ বেলা ৫ শত টাকা কেজি হলে নিতে পারেন। আমি অজ্ঞতা ৩ টি ঝাটকা বাছাই করে মাছ ওয়ালাকে মাপতে দিয়ে আল্লাহ আল্লাহ করছি। ১ কেজির বেশি যেন হয়ে না যায়।

৫ শত টাকা দিয়ে মাছ কিনে কিছুটা হেঁটে এসে অসুস্থ স্ত্রীর জন্য ওষুধ কিনে মুলামুলি করে ২০ টাকা ভাড়ায় রিক্সায় উঠে বাড়ি ফিরলাম। আমার স্ত্রীকে নরম সুরে বললাম (এত ছোট মাছ দেখে যদি রেগে যায় সেজন্য) ৩ টি মাথা দিয়ে পুঁইশাক রান্না করবা। ছোট মাছ তো, ৩ টা মাথা না দিলে হবে না। আমার সুন্দরী স্ত্রী রাগত সুরে বলল গ্যাস নাই আর কেরোসিন তেল দিয়ে পুইশাক সিদ্ধও হবে না বলে ঘ্যান ঘ্যান করতে লাগলো।

আমার ভীষণ ক্ষুধা, মেয়ে সুরভীকে বললাম আব্বু ভাত দাও। সকালবেলা ঘুম থেকে উঠতেই আমার স্ত্রী ৯ টা বাজাকে ১০টা বাজে বলে উল্লেখ করে ডায়াবেটিক এর রোগী এত বেলা করে নাস্তা খেলে কি চলে। যেই নাস্তা চায়ের পানি আর পরোটা। বারান্দায় বসে আমি প্রথম আলো পত্রিকা পড়তে পড়তে ভাবছি আজকে তো নাস্তার টাকাই পুরো নাই। দোকানে গিয়ে ছয়টি পরোটা (৬০ টাকা) ১০ টাকার হালুয়া আর ১০ টাকা দামের মিনি প্যাক ডানো দুধ কিনে বাড়ি আসলাম। আমি বললাম তোমরা নাস্তা খাও আমি বোস কেবিনে করব। আমার বুদ্ধিমতী স্ত্রী বুঝতে পেরেছে আমার টাকা নাই। সে বলল চা খেয়ে যান এবং আরোও বলল মার কাছ থেকে রিক্সা ভাড়া এনে দেই নিয়ে যান। (৩০ টাকা আমার ড্রেসিং টেবিলের উপরে রাখলো) আমি বললাম না রিক্সা ভাড়া লাগবে না আমার পথিমধ্যে কাজ আছে হেঁটেই যেতে পারবো। চা আর বাসি ২ পিস পাউরুটি খেয়ে আমি অফিসের পথে পা বাড়ালাম।

বোস কেবিনে আমার আর নাস্তা খাওয়া হয়নি। একটি বিজ্ঞাপনের বিল বাবদ ৫ শত টাকা পেলাম। বন্ধু দীপক সাহার অফিসে চা খাচ্ছি আমার স্ত্রীর ফোন। সুরভী বুটের হালুয়া রান্না করবে কিছু চিনি আইনেন। আমি বললাম, আর কিছু লাগবে? আমার বুদ্ধিমতী স্ত্রী নিচু স্বরে বলল যদি একটু ঘি আনতেন। আমি ভাবতেছি মেয়েটা কখনো মুখ ফুটে চায় না। যাক দোকান থেকে ৪৫ টাকা দিয়ে আধা কেজি চিনি আর মিষ্টি মুখ থেকে ২৫০ গ্রাম ঘি ৩ শত টাকা দিয়ে কিনে, স্ত্রীর জন্য ১০০ টাকা দিয়ে গ্যাসের ট্যাবলেট কিনে বাড়ির পথে পা বাড়ালাম। তপ্তদুপুর বেলা ২ টা, আমার পকেট শূন্য কতকিছু যে প্রয়োজন কিন্তু যোগান দেবার সামর্থ্য কই। গত শুক্রবার জুমার নামাজে বাংলা খুতবায় ইমাম সাহেব বয়ান করছিলেন বাবারা কত কষ্ট করে সংসার পরিচালনা করে। বাবা নিজে না খেয়ে সন্তানদের ভরণ পোষণ করে। হাড়ভাঙ্গা পরিশ্রম করে। শুধুমাত্র সন্তানের মুখে হাসি ফোটানোর জন্য। বাবুরাইল লেকপার দিয়ে হাঁটতে হাঁটতে ভাবলাম আমিও তো একজন বাবা। ব্যতিক্রম বাদে পৃথিবীর সকল বাবাদের চরিত্রই ত্যাগের মহিমায় ভাস্বর। আমি বাংলাদেশসহ পৃথিবীর সকল বাবাদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাই কৃতজ্ঞতা জানাই। আর আমি বাবা হতে পেরে নিজেকে গর্বিত মনে করি। জানি না আমার সন্তানদের দৃষ্টিতে ভালো বাবা হতে পেরেছি কিনা ?

Islams Group
Islam's Group